শনিবার, ১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং
শিরোনাম
  • **কাসেম সোলেমানির ঘনিষ্ঠ স্থানীয় কমান্ডার আব্দেলহোসেইন মোজাদ্দামিকে বুধবার তার বাসার সামনে গুলি করে হত্যা করেছে দুই মুখোশধারী**রোহিঙ্গাদের সুরক্ষায় মিয়ানমারকে জরুরি ভিত্তিতে চার দফা অন্তর্বর্তীকালীন পদক্ষেপ নিতে নির্দেশ দিয়েছে ইন্টারন্যাশনাল কোর্ট অব জাস্টিস (আইসিজে)** রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সংবিধান আমূল পরিবর্তনের প্রস্তাব প্রাথমিকভাবে সমর্থন করেছে পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ স্টেট দুমা** রুট 19 এর নাম বদলে গভর্নর ফিল মারফি মঙ্গলবার বিল প্যাসক্রেলের নামে সড়ক নামকরণের একটি বিলে স্বাক্ষর করেছেন** প্যাটারসনে মেইন স্ট্রিটে পীষ্ঠ হয়ে ৬১ বছর বয়সী ব্যক্তির মৃত্যু** ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়ালের বিরুদ্ধে হলফনামায় সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগে ব্যবস্থা চেয়েছেন অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক**
শুক্রবার, নভেম্বর ২২, ২০১৯ ১১:১৪ অপরাহ্ণ
A- A A+ Print

আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কার পেলেন গ্রেটা থানবার্গ

আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কার পেলেন বিশ্বজুড়ে সাড়া জাগানো তরুণ জলবায়ু কর্মী গ্রেটা থানবার্গ।

পরিবেশ আন্দোলনে বিশেষ ভূমিকা রাখায় বুধবার তাকে এ পুরস্কার তুলে দেয়া হয়। ক্যামেরুনের ১৫ বছর বয়সী শান্তি কর্মী দিভিনা মালুমকেও এ পুরস্কার দিয়েছে ডাচ সংস্থা কিডসরাইটস ফাউন্ডেশন। খবর এএফপির।

মাত্র ১৬ বছর বয়সে গ্রেটা থানবার্গ বিশ্বে চলমান জলবায়ু আন্দোলনের নেতায় পরিণত হয়েছেন। সম্প্রতি শেষ হওয়া জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে বিশ্বনেতাদের উদ্দেশে অগ্নিঝরা ভাষণ দিয়ে অগ্নিকন্যা খেতাব কুড়িয়েছেন তিনি।

২০১৮ সালের আগস্টে প্রতি শুক্রবার সুইডেনের পার্লামেন্টের সামনে একটি প্ল্যাকার্ড নিয়ে অবস্থান নিয়ে আলোচনায় আসেন গ্রেটা। ওই প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল, জলবায়ুর জন্য স্কুলে ধর্মঘট।

এ কিশোরী জলবায়ু আন্দোলনকর্মীর ডাকে ‘ফ্রাইডেজ ফর ফিউচার’ কর্মসূচিতে সাড়া দিয়েছেন বিশ্বের কয়েক লাখ মানুষ।

গ্রেটা এক বার্তায় জানিয়েছেন, এ পুরস্কারে অত্যন্ত কৃতজ্ঞ ও সম্মানিত বোধ করছেন তিনি। তার পক্ষে পুরস্কার গ্রহণ করেন জার্মান জলবায়ুকর্মী লুইসা মারি নুবার। তিনি বলেন, ‘জলবায়ু সংকটই এ সময়ে সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।’

অন্যদিকে দিভিনা মালুমকে পুরস্কার দেয়া হয় বোকো হারামের বিরুদ্ধে তার শান্তিপূর্ণ লড়াইয়ের জন্য। তিনি বলেন, ‘ক্যামরুন ও আফ্রিকায় নীতিনির্ধারকরা শিশুদের ভুলে গেছেন।

শান্তি প্রতিষ্ঠার কথা ভুলে গেছেন। আমি সব শিশুদের এ বিষয়ে আওয়াজ তোলার আহ্বান জানাই।’ ২০১৪ সালে শান্তিতে নোবেল বিজয়ী ভারতীয় কৈলাশ সত্যার্থী বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

এছাড়া জয়ীরা তাদের আন্দোলনের জন্য ১ লাখ ইউরোও পাবেন। এর আগে এ পুরস্কার পেয়েছিলেন পাকিস্তানের অধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজায়ী।

থানবার্গ নিজে উপস্থিত থেকে শান্তি পুরস্কার নিতে পারেননি। কারণ বর্তমানে জাতিসংঘের এক সম্মেলনে যোগ আটলান্টিক পাড়ি দিচ্ছেন তিনি। এর আগে সুইডেন থেকে চিলির উদ্দেশে যাত্রা করেছিলেন গ্রেটা।

Comments

Comments!

 Natunsokal.com

আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কার পেলেন গ্রেটা থানবার্গ

শুক্রবার, নভেম্বর ২২, ২০১৯ ১১:১৪ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কার পেলেন বিশ্বজুড়ে সাড়া জাগানো তরুণ জলবায়ু কর্মী গ্রেটা থানবার্গ।

পরিবেশ আন্দোলনে বিশেষ ভূমিকা রাখায় বুধবার তাকে এ পুরস্কার তুলে দেয়া হয়। ক্যামেরুনের ১৫ বছর বয়সী শান্তি কর্মী দিভিনা মালুমকেও এ পুরস্কার দিয়েছে ডাচ সংস্থা কিডসরাইটস ফাউন্ডেশন। খবর এএফপির।

মাত্র ১৬ বছর বয়সে গ্রেটা থানবার্গ বিশ্বে চলমান জলবায়ু আন্দোলনের নেতায় পরিণত হয়েছেন। সম্প্রতি শেষ হওয়া জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে বিশ্বনেতাদের উদ্দেশে অগ্নিঝরা ভাষণ দিয়ে অগ্নিকন্যা খেতাব কুড়িয়েছেন তিনি।

২০১৮ সালের আগস্টে প্রতি শুক্রবার সুইডেনের পার্লামেন্টের সামনে একটি প্ল্যাকার্ড নিয়ে অবস্থান নিয়ে আলোচনায় আসেন গ্রেটা। ওই প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল, জলবায়ুর জন্য স্কুলে ধর্মঘট।

এ কিশোরী জলবায়ু আন্দোলনকর্মীর ডাকে ‘ফ্রাইডেজ ফর ফিউচার’ কর্মসূচিতে সাড়া দিয়েছেন বিশ্বের কয়েক লাখ মানুষ।

গ্রেটা এক বার্তায় জানিয়েছেন, এ পুরস্কারে অত্যন্ত কৃতজ্ঞ ও সম্মানিত বোধ করছেন তিনি। তার পক্ষে পুরস্কার গ্রহণ করেন জার্মান জলবায়ুকর্মী লুইসা মারি নুবার। তিনি বলেন, ‘জলবায়ু সংকটই এ সময়ে সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।’

অন্যদিকে দিভিনা মালুমকে পুরস্কার দেয়া হয় বোকো হারামের বিরুদ্ধে তার শান্তিপূর্ণ লড়াইয়ের জন্য। তিনি বলেন, ‘ক্যামরুন ও আফ্রিকায় নীতিনির্ধারকরা শিশুদের ভুলে গেছেন।

শান্তি প্রতিষ্ঠার কথা ভুলে গেছেন। আমি সব শিশুদের এ বিষয়ে আওয়াজ তোলার আহ্বান জানাই।’ ২০১৪ সালে শান্তিতে নোবেল বিজয়ী ভারতীয় কৈলাশ সত্যার্থী বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

এছাড়া জয়ীরা তাদের আন্দোলনের জন্য ১ লাখ ইউরোও পাবেন। এর আগে এ পুরস্কার পেয়েছিলেন পাকিস্তানের অধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজায়ী।

থানবার্গ নিজে উপস্থিত থেকে শান্তি পুরস্কার নিতে পারেননি। কারণ বর্তমানে জাতিসংঘের এক সম্মেলনে যোগ আটলান্টিক পাড়ি দিচ্ছেন তিনি। এর আগে সুইডেন থেকে চিলির উদ্দেশে যাত্রা করেছিলেন গ্রেটা।

Please follow and like us:
error0

Comments

comments

X
error