২০শে আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, সকাল ১১:২৫, শনিবার

  • বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

মারিওপোলের প্রতিরোধ যোদ্ধারা শেষ পর্যন্ত লড়ে যাবে: ইউক্রেন
রিপোর্টারের নাম / ২৮ বার
আপডেট সময় শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২

ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, মারিউপোল এখনো রুশ সেনাদের দখলে যায়নি। ইউক্রেনের সেনারা লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন। শেষ পর্যন্ত তাঁরা লড়াই চালিয়ে যাবেন।

ইউক্রেনের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় শহর মারিওপোলে দেশটির প্রতিরোধ যোদ্ধাদের সঙ্গে তুমুল লড়াই চলছে রুশ সেনাবাহিনীর। রাশিয়া দাবি করে আসছে বন্দর নগরী মারিওপোল এখন তাদের দখলে। এমন দাবি প্রত্যাখান করে ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ডেনিস সিমিহল বলেছেন,“মারিউপোলে ইউক্রেইনীয় সেনারা আত্মসমর্পণ করবে না। আমি গতকালই তাদের সঙ্গে কথা বলেছি। আমি জানি, তারা শেষ পর্যন্ত লড়ে যাবে।”

এক সাক্ষাত্কারে ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ডেনিস স্মিহাল বলেছেন, ইউক্রেনের দক্ষিণের বন্দর শহর মারিউপোলে অবশিষ্ট ইউক্রেনীয় সেনারা এখনো লড়াই করছেন। সেনাদের আত্মসমর্পণের জন্য রাশিয়ার আলটিমেটাম মানবেন না তাঁরা। তিনি বলেন, ‘মারিউপোলের এখনো পতন হয়নি।’

মারিউপোলের মেয়রের উপদেষ্টা পেত্রো আন্দ্রিউসচেঙ্কো টেলিগ্রামে বলেছেন, “রাশিয়া অবশিষ্ট সেনাদের জন্য ‘আত্মসমর্পণ করিডোর’ এর ব্যবস্থা করার প্রস্তাব দেওয়ার পরও আমাদের প্রতিরক্ষা সেনারা তাদের প্রতিরোধ অক্ষুন্ন রেখেছে।”

রোববার রাশিয়া মস্কো সময় সকাল ৬টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত ইউক্রেইনীয় সেনা ও ‘বিদেশি ভাড়াটে সেনাদের’ অস্ত্র সমর্পণে সময় বেঁধে দিয়ে বলেছে, যারাই অস্ত্র নামিয়ে রাখবে, তাদেরকে যুদ্ধবন্দির মর্যাদা দেওয়া হবে ও জেনেভা কনভেনশন অনুযায়ী আচরণ করা হবে।ইগোর কোনাশেঙ্কোভ দাবি করেন, ইতিমধ্যে ১ হাজার ৪৬৪ জন ইউক্রেনের সেনা আত্মসমর্পণ করেছেন। এখন ইউক্রেনের অবরুদ্ধ সেনারা যদি যুদ্ধ চালিয়ে যান, তবে তাঁদের জীবন বিপন্ন হতে পারে। আর আত্মসমর্পণ করলে তাঁদের সুরক্ষা নিশ্চিত করবে রুশ বাহিনী।

অন্যদিকে, রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ভাষ্য, তারা শনিবারই শহরটির অন্য সব এলাকার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে, ইউক্রেইন বাহিনীর কেবল অল্প কিছু সেনা এখন বিশাল আজভস্টাল ইস্পাত কারখানা সংশ্লিষ্ট এলাকায় অবরুদ্ধ হয়ে আছে।

ইউক্রেইনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছেন, মারিউপোলের ইউক্রেইনীয় যোদ্ধাদেরকে সেখান থেকে হটিয়ে দেওয়া হলে যুদ্ধ অবসানে শুরু হওয়া শান্তি আলোচনার ইতি ঘটবে।

ইউক্রেইনীয় এমপি ওলেক্সি গনচারেঙ্কো মারিউপোলে রাশিয়ার হত্যাযজ্ঞকে ‘প্রকৃতই গণহত্যা’ আখ্যা দিয়েছেন। তিনি আনুমানিক হিসাব দিয়ে বলেন, অবরুদ্ধ এই নগরীতে প্রায় ১ লাখ মানুষ আছে। তার মধ্যে ২০ হাজারেরও বেশি মানুষ নিহত হয়েছে বলে ধারণা করা হয়।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর